Welcome

অপূর্ণ বাসনা//সেলিম মিয়া

ধুপ ধোঁয়ায় ঢাকা পড়েছে মন, বসন্ত করেছে বর্ষার পণ, ঘিরে রেখেছে সুসময়ের সামন্ত ক্ষণ।

দুঃখ-বিপদ-দায় নিয়ে ছুটে চলেছে প্রাণ, মুক্তির বাসনা পূর্ণ মন্দিরে; পুরোহিত এর তন্ত্র, বড়রা পূজা দেবে, দেব প্রসাদ খাবে, পরে এসো, পরের পর্বে পূজা দিবে।

ভোগ বিধানে ভক্তরা মত্ত হয়ে, দেবের চরণে পুষ্পার্ঘ অঞ্জলির প্রণাম, পরম প্রসাদ প্রহরে। দেবের দরবারে, মন্ত্র-জপ-আরতির পালা, পুরোহিতের গলে মালা, মনঃপুত না হলে, দেব এর ভালবাসা মেলে না।

আমি ছোট্ট, আমি অজ্ঞ, পূজার মন্ত্র-তন্ত্র- জপ-প্রসাদ- পর্ব-লগ্ন রক্ষার মর্ম বুঝিনা, দেব দেবীর চরণে ঠাঁই পাইনা, আমার অপূর্ণ বাসনা পূর্ণতা পায় না।

পুরোহিতের কথায় ছোট্ট-বুকের ব্যাথায়- ক্ষত-হয়, নীরব বাঁশির বেদনার সুরে, অপ-অবহেলায়-কাঁদে।

শেষ আশা, মহাদেব; সাক্ষাৎ যদি পাই, পাই যেন তার মনে ঠাঁই। এভাবে আমার পূজা প্রেমের, অপেক্ষার পর অপেক্ষা গ্রীষ্ম থেকে শীতে। বিশেষ দ্রষ্টব্য: কিছু শব্দ রূপক অর্থে ব্যবহৃত করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *